অর্থসহ আল্লাহ তা’য়ালার ৯৯ গুণবাচক নাম

আল্ আসমাউল হুসনা বা আল্লাহ্ তাআ’লার সুন্দর ও পবিত্র নাম

আল্লাহর তা’য়ালার ৯৯ গুণবাচক নামের অনেক ফজিলত রয়েছে। এই নামগুলো জিকর করে দোয়া করলে দোয়া কবুল হয়।

হাদীস শরীফে আছে, যে ব্যক্তি আল্লাহর ৯৯ নাম হেফজ করিবে, সে অনায়াসে বেহেশতে যাইতে পারিবে। এই জন্য আল্লাহর ৯৯ নাম অর্থসহ এখানে লিখে দেয়া হল।

অর্থসহ ৯৯ গুণবাচক নামের তালিকা

১. ইয়া রাহমানু- হে দয়াশীল!

২. ইয়া রাহীমু- হে করুণাময়!

৩. ইয়া মালিকু- হে বাদশাহ্!

৪. ইয়া কুদ্দূছু- হে পূত-পবিত্র!

৫. ইয়া ছালামু- হে শান্তিকর্তা!

৬. ইয়া মু’মিনু- হে মহা বিশ্বাসী!

৭. ইয়া মোহাইমিনু- হে সত্য সাক্ষী!

৮. ইয়া আ’জীজু- হে মহা প্রভাবশালী।

৯. ইয়া জাব্বারু- হে মহা বিক্রমশালী!

১০. ইয়া মুতাকাব্বিরু- হে গৌরবান্বিত!

১১. ইয়া খালিকু- হে মহান স্রষ্টা!

১২. ইয়া বারিউ- হে সৃজন ক্ষমতাবান!

১৩. ইয়া মোছাওয়েরু- হে মহান শিল্পী।

১৪. ইয়া গাফফারু- হে ক্ষমাশীল!

১৫. ইয়া ক্বাহহারু- হে মহা শাস্তিদাতা!

১৬. ইয়া ওয়াহহবু- হে মহা দানশীল!

১৭. ইয়া রাজ্জাকু- হে শ্রেষ্ঠ অন্নদাতা!

১৮. ইয়া ফাত্তাহু- হে সম্প্রসারণকারী!

১৯. ইয়া আ’লীমু- হে মহাজ্ঞানী!

২০. ইয়া ক্বাবিজু- হে পরাভূতকারী!

২১. ইয়া বাছিতু- হে মহা প্রশস্ত!

২২. ইয়া হাফিজু- হে রক্ষাকারী!

২৩. ইয়া রাফিউ- হে মহান উন্নত!

২৪. ইয়া মুইজ্জু- হে সম্মানিত!

২৫. ইয়া মুজিল্লু- হে হীনকারী!

২৬. ইয়া ছামীউ- হে শ্রবণকারী!

২৭. ইয়া বাছীরু- হে দর্শনকারী!

২৮. ইয়া হাকামু- হে জ্ঞানী!

২৯. ইয়া আ‘দলু- হে ন্যায়বিচারক!

৩০. ইয়া লাত্বীফু- হে সূক্ষ্ন!

৩১. ইয়া খাবিরু- হে মহা সংবাদগ্রাহক!

৩২. ইয়া হালীমু- হে ধৈর্যশীল!

৩৩. ইয়া আ‘জীমু- হে বিরাট!

৩৪. ইয়া গাফূরু- হে ক্ষমাশীল!

৩৫. ইয়া শাকূরু- হে কৃতজ্ঞতা পছন্দকারী!

৩৬. ইয়া আ’লিয়্যু- হে মহা উচ্চ!

৩৭. ইয়া কাবীরু- হে বৃহৎ!

৩৮. ইয়া ছাদেকু- হে সত্যবাদী!

৩৯. ইয়া কারীমু- হে অনুগ্রহকারী!

৪০. ইয়া মুক্বীতু- হে শক্তিদাতা!

৪১. ইয়া হাছীবু- হে মহান হিসেব গ্রহণকারী!

৪২. ইয়া জালীলু- হে পরাক্রমশালী!

৪৩. ইয়া রাক্বীবু- হে নেগাহবান!

৪৪. ইয়া মুজীব- হে প্রার্থনা মঞ্জুরকারী!

৪৫. ইয়া ওয়াছিউ- হে প্রশস্তকারী!

৪৬. ইয়া হাকীমু- হে মহাবিজ্ঞানী!

৪৭। ইয়া ওয়াদুদু- হে দয়াশীল!

৪৮. ইয়া মাজীদু- হে মহা সম্মানিত!

৪৯. ইয়া বায়িছু- হে পুনরুত্থানকারী!

৫০. ইয়া শাহীদু- হে সর্বদর্শী!

৫১. ইয়া হাক্কু- হে সত্যবাদী!

৫২. ইয়া ওয়াকীলু- হে সমাধানকারী!

৫৩. ইয়া ক্বাবিয়্যু- হে শক্তিধর!

৫৮. ইয়া মুবিনু- হে বর্ণনাকারী!

৫৫. ইয়া ওয়ালিয়্যু- হে সৃষ্টিকুলের মালিক!

৫৬. ইয়া হামীদু- হে প্রশংসিত!

৫৭. ইয়া মুহছিয়্যু- হে বেষ্টনকারী!

৫৮. ইয়া মুবদিউ- হে প্রকাশকারী!

৫৯. ইয়া মুঈ’দু- হে পুনরুত্থানকারী!

৬০. ইয়া মুহয়ী- হে জীবনদানকারী!

৬১। ইয়া মুমীতু- হে মৃত্যুদানকারী!

৬২.ইয়া হাইয়্যু- হে অমর!

৬৩. ইয়া কাইয়্যুম- হে চিরঞ্জব!

৬৪. ইয়া ওয়া-জিদু- হে সকল বস্তুর মালিক!

৬৫. ইয়া মাতীনু- হে দৃঢ়!

৬৬. ইয়া ওয়া-হিদু- হে অদ্বিতীয!

৬৭. ইয়া আহাদু- হে একক মালিক!

৬৮. ইয়া ছামাদু- হে অমুখাপেক্ষী!

৬৯. ইয়া ক্বা-দিরু- হে মহাশক্তিশালী!

৭০. ইয়া মুক্বতাদিরু- হে শক্তির অধিকারী!

৭১. ইয়া মুক্বাদ্দিম- হে সূচনাকারী!

৭২. ইয়া মুআখখিরু -হে অনন্ত!

৭৩. ইয়া আউয়ালু- হে অনাদি।

৭৪. ইয়া আখিরু -হে সর্বশেষ!

৭৫. ইয়া যাহেরু -হে প্রকাশকারী!

৭৬. ইয়া বাত্বিন- হে অপ্রকাশ্য সত্তা!

৭৭. ইয়া ওয়ালী- হে সকল বস্তুর মালিক!

৭৮. ইয়া মুতাআ’লী- হে সর্ব্বোচ্চ মহান!

৭৯. ইয়া বাররু- হে নেক কাজ সৃষ্টিকারী!

৮০. ইয়া তাউওয়াবু- হে তওবা কবুলকারী!

৮১. ইয়া মুন্তাক্বিমু- হে প্রতিশোধ গ্রহণকারী!

৮২. ইয়া মুনই’মু- হে মহান দানকারী!

৮৩. ইয়া সাত্তারু- হে গোপনকারী!

৮৪। ইয়া রাউফু- হে দয়াশীল!

৮৫. ইয়া মুকছিতু- হে ন্যায়বিচারক!

৮৬. ইয়া জামিউ’- হে একত্রিতকারী!

৮৭. ইয়া গানিয়্যু- হে অভাবহীন!

৮৮. ইয়া মানিউ’- হে বাধা প্রদানকারী!

৮৯. ইয়া দোয়াররু- হে মহা কষ্ট প্রদানকারী!

৯০. ইয়া নাফিউ’- হে মুনাফা দানকারী!

৯১. ইয়া নূরু- হে মহান আলোকচ্ছটা!

৯২. ইয়া হাদিউ- হে পথপ্রদর্শক!

৯৩. ইয়া বাদীউ’- হে মহান সৃষ্টিকারী!

৯৪. ইয়া বা-ক্বিউ- হে স্থিতিশীল!

৯৫. ইয়া ওয়ারিছু- হে উত্তরাধিকারী!

৯৬. ইয়া রাশীদু- হে পথপ্রদর্শক!

৯৭. ইয়া ছাবূর- হে ধৈর্যশীল!

৯৮. ইয়া মালিকাল মুলকি- হে মহান অধিপতি!

৯৯. ইয়া যাল জালালি ওয়াল ইকরাম- হে প্রতাপশালী, সম্মানীত।

এছাড়া আল্লাহ্ তায়ালার গুনবাচক আরো বহু নাম আছে। যেমন- ইয়া আফুউ, ইয়া মুবনী, ইয়া হান্নানু, ইয়া মান্নানু, ইয়া মুগীসু, ইয়া কারীবু, ইয়া মাওলা, ইয়া নাছীরু, ইয়া খাফিজু, ইয়া জামীলু, ইয়া রাব্বু।

ইয়া আল্লাহু- হে আল্লাহ্! ইসিমটি আল্লাহর জাতিবাচক নাম। ইয়া আল্লাহু ইসিমের মাধ্যমে অনেক বড় বড় উদ্দেশ্য হাসিল করা যায়। এ সম্পর্কে জানতে চাইলে এখানে ক্লিক করে জেনে নিতে পারেন।

What do you think?

0 points
Upvote Downvote

Comments

Leave a Reply

Loading…

0

Comments

0 comments

কবীরা গুনাহসমূহের বর্ণনা

মহিলাদের জন্য গুরুত্বপূর্ণ কতিপয় নসিহত